'যে আশঙ্কাগুলো করেছি, খুলনায় সেগুলো প্রস্ফুটিত হয়েছে'
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম
অ+ অ-প্রিন্ট


খুলনার সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ভোটের শুরুতেই ৪০টি কেন্দ্র থেকে ধানের শীষের প্রার্থীর এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি। মঙ্গলবার খুলনায় ভোট শুরুর প্রায় তিন ঘণ্টা পর ঢাকায় এক সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, আমরা যে আশঙ্কাগুলো করেছি, খুলনায় সকাল আটটা থেকে এরইমধ্যে সেগুলো প্রস্ফুটিত হয়েছে। সেই একই সন্ত্রাসের পুনরাবৃত্তি। ভোট ডাকাতির যে বিষয়টি আমরা অভিযোগ করেছিলাম, ভোটগ্রহণ শুরুর পর থেকে ডাকাতির যে চরিত্র দেখছি- কেড়ে নেয়া, বের করে দেয়া, আটকে রাখা, রক্তাক্ত করা, ব্যালট বাক্স নিয়ে যাওয়া, ভোটারদের ভয়ভীতি দেখানো, মহিলা এজেন্টদের হুমকি দেয়া এটা তো ডাকাতির নিদর্শন। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসীরা কেন্দ্রে ঢুকে দেদারসে সিল মারছে। আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বিএনপির এজেন্ট ও ভোটারদের ভয়ভীতি দেখাচ্ছে।

শেখ হাসিনার আমলে নির্বাচন মানে ‘বিরাট ধাপ্পা’মন্তব্য করে রিজভী বলেন, ইসি গ্রিকমূর্তির মতো নির্বাক হয়ে আছে। বিভিন্ন জেলা থেকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে খুলনায় মোতায়েন করা হয়েছে। অথচ তাদের সামনেই আওয়ামী সন্ত্রাসীরা ভোটারদের বাধা দিচ্ছে।

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, আপনারা হয়তো উপলব্ধি করতে পারছেন যে আওয়ামী সরকার কেনো সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে চায় না। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দিয়ে করতে চায়। কারণ শেখ হাসিনা যা বলবেন তারা তা অক্ষরে অক্ষরে পালন করবে। যেমন নির্বাচন কমিশন সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠান হলেও শেখ হাসিনার কথা অক্ষরে অক্ষরে পালন করে।

সংবাদ সম্মেলনে দলের কেন্দ্রীয় নেতা আবদুস সালাম আজাদ, তাইফুল ইসলাম টিপু, মুনির হোসেনসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।


১৫ মে, ২০১৮ ১৫:৫৯:২৩