'আমাকে ধর্ষণ করেছে', রাস্তায় কেঁদে কেঁদে বলছিলেন তরুণী [ভিডিও]
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
ব্যস্ত সড়কে হঠাৎ এক তরুণীর আবির্ভাব হলো। লাল রঙের ছোট স্কার্ট ও সাদা রঙের টপস পরা তরুণীকে কিছুক্ষণের মধ্যেই অনেকে ঘিরে ধরলেন। নারী-পুরুষ সবাই তরুণীকে প্রশ্ন করতে শুরু করলেন। আর কেঁদে কেঁদে ওই তরুণী বললেন, ‘আমাকে ধর্ষণ করেছে।’

লেবানিসের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এরকমই একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে, ধর্ষিতাকে সাহায্য না করে পথচারীরা নানা ধরনের প্রশ্ন করছেন। ‘‌শেম অন হু’‌ নামের ওই ভিডিওটি ইতিমধ্যেই নেটিজেনদের মন জয় করেছে। ভিডিওতে মানাল নামের এক তরুণী ধর্ষিতার ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। ভিডিওটি মিথ্যা হলেও বাস্তব সত্যটা সকলের সামনে তুলে ধরতে সফল হয়েছে এই স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাটি।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, লাল রঙের ছোট স্কার্ট ও সাদা রঙের টপ পরে মানাল যখন সাহায্য চাইছেন, তখন পথচারী নারী-পুরুষ তাকে জিজ্ঞাসা করছেন ‘‌আপনি কি মদ্যপ’‌ বা ‘‌আপনি কি মাদক খেয়েছেন’‌। কোনো কোনো নারী ধর্ষণের বিষয়টি জানার পর ওই তরুণীকে বলছেন, ‘‌প্রকাশ্যে ধর্ষণের কথা জোরে জোরে বলবেন না।’‌ অনেকে বলছেন, ‘‌কেউ হয়ত শারীরিক সম্পর্ক করে তাকে রাস্তায় ছেড়ে দিয়ে গিয়েছে।’‌ এত প্রশ্নের পরও একজনও সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসেননি।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, কেউ কেউ আক্রান্তের পোশাক নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন। আবাদ নামে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন তাদের এই ভিডিওর মাধ্যমে বাস্তবকে সকলের সামনে এনেছেন। আবাদের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সমাজের রূপ তুলে ধরতেই এই ভিডিও। ধর্ষিতার সঙ্গে কী ধরনের আচরণ করা হয়, তা দেখিয়েছে তারা। এবার হয়ত সমাজ কিছুটা হলেও বদলাবে। সূত্র: জিনিউজ



০৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২৩:৩৭:১৪