ভোটে লড়তে পারবেন না মরিয়ম, সব আশা শেষ নওয়াজের?
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
নওয়াজ শরিফের দুর্নীতির মামলার রায়ে বড়সড় প্রভাব পড়তে চলেছে পাকিস্তানের নির্বাচনে। ১০ বছরের জেলের সাজা ঘোষণা হয়েছে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের। আর যাকে নিবে শেষ আশা দেখেছিল তাঁর দল, সেই নওয়াজ কন্যা মরিয়মেরও সাত বছরের জেলের সাজা ঘোষণা করা হয়েছে। অর্থাৎ, নির্বাচনে লড়তে পারবেন না মরিয়ম।

এদিনের রায়ের পর ট্যুইট করে মরিয়ম দলের উদ্দেশে বলেন, ‘কোনোভাবেই এই রায়ে বিচলিত হবেন না। নওয়াজ শরিফের জন্য এটা নতুন কিছু নয়। নির্বাসন, যাবজ্জীবন, এসবের মুখোমুখি আগেও হয়েছেন তিনি।’

শুক্রবার পাকিস্তানের আদালতে নওয়াজ শরিফের এই মামলার শুনানি ছিল। আর সেখানেই সাজা ঘোষণা করা হয়েছে। এর আগে লন্ডনে তাঁর স্ত্রী’র চিকিৎসা চলায় শুনানি পিছিয়ে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছিলেন নওয়াজ শরিফ। কিন্তু সেই আর্জি ধোপে টেকেনি।

আর মাত্র হাতে গোনা কয়েকদিন বাদে আগামী ২৫ জুলাই পাকিস্তানের নির্বাচন। তার আগেই এই রায় স্বাভাবিকভাবেই চাপে ফেলে দিল নওয়াজ শরিফের দলকে। ২০১৫-তে সামনে আসে ‘পানামা পেপারস’ কেলেঙ্কারি। আর সেখানেই নওবাজ শরিফের বিরুদ্ধে দুর্নীতির বিষয়টি সামনে আসে। সেইসময় জানা যায়, শরিফ ও তাঁর সন্তানদের সঙ্গে একাধিক বেনামী সংস্থার যোগ রয়েছে। আর সেখান থেকে পাওয়া টাকা দিয়েই লন্ডনের পার্ক লেনে Avenfield House-এ চারটি বিলাসবহুল ফ্ল্যাট কেনেন শরিফ।

০৭ জুলাই, ২০১৮ ০০:৫৪:২২