ইমরান লম্পট ও অসৎ, চাঞ্চল্যকর অভিযোগ দ্বিতীয় স্ত্রী রেহাম খানের
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট


আদতে একটি বই। তবে বাস্তবে বোমার থেকে কম কিছু নয়। পাক রাজনীতি ও ক্রিকেট মহলে বোমা ফাটিয়েছেন ইমরানে খানের দ্বিতীয় স্ত্রী রেহাম খান। বইয়ের ছত্রে ছত্রে ধরা পড়েছে ইমরান খান, ওয়াসিম আক্রমের মতো পাক সেলিব্রিটিদের জীবনের অন্ধকার দিক।  লেখিকাকে আইনি নোটিস পাঠিয়েছেন সেলিব্রিটিরা। ভোটের মুখে তোলপাড় পাকিস্তানে। যখন খেলতেন, তখন থেকেই মহিলামহলে ইমরানের তুমুল জনপ্রিয়তা। পাকিস্তানের প্রয়াত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টোর সঙ্গেও নাম জড়িয়েছিল তাঁর। নারীসঙ্গ যে প্রাক্তন পাক অধিনায়ক যথেষ্ট উপভোগ করেন, তাও কারও অজানা নয়। প্রাক্তন স্ত্রী হওয়ার সুবাদে ইমরান খানকে কাছ থেকে দেখেছেন রেহাম খান। সেই অভিজ্ঞতার কথাই বইতে লিখেছে্ন তিনি। কী লিখেছেন ইমরানের দ্বিতীয় স্ত্রী? তাঁর চোখে ইমরান ‘লম্পট, অসৎ ও অধার্মিক’। দেশবাসীর কাছে সত্য গোপনের মতো গুরুতর  অভিযোগে প্রাক্তন পাক অধিনায়ককে কাঠগড়া তুলেছেন তাঁরই প্রাক্তন স্ত্রী। রেহাম খানের দাবি, অল্পবয়সি মেয়েদের সঙ্গে যৌনতায় লিপ্ত হয়েছেন ইমরান। তাঁরা যথন গর্ভবতী হয়ে পড়তেন, তখন জোর করে গর্ভপাত করাতেন তিনি। আর এই কাজে ইমরানকে সাহায্য করেছিলেন পাক বংশোম্ভুত ব্রিটিশ ব্যবসায়ী জুলফি বুখারি। এখানেই শেষ নয়, বইতে রেহাম খান লিখেছেন, তাঁর সঙ্গে সম্পর্ক থাকাকালীন তেহরিক-ই-ইনসাফের মিডিয়া কো-অর্ডিনেটর অনিলা খোয়াজার সঙ্গেও সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন ইমরান খান। তাঁকে নিজের ইচ্ছামতো কাজ করতে বাধ্য করতেন অনিলা। বাদ যাননি পাকিস্তানের ক্রিকেট দলের ইমরানের সতীর্থ ওয়াসিম আক্রমও। তাঁকে ‘মহিলাবাজ’ বলে মন্তব্য করেছেন রেহাম খান।

ইমরান খান, ওয়াসিম আক্রমকে পাকিস্তানে আইকন বললেও কম বলা হয়। ইমরানের নেতৃত্বে বিশ্বকাপ জিতেছিল পাকিস্তান। সেই দলের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য ছিলেন ওয়াসিম আক্রম। রেহাম খানকে আইনি নোটিস পাঠিয়েছেন দু’জনেই। আইনি নোটিস পাঠিয়েছেন পাক বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ ব্যবসায়ী জুলফি বুখারি, অনিলা খোয়াজা, এমনকী, রেহামের প্রথম স্বামী ইজাজ রেহমানও। বইটি প্রকাশিত হলে রেহাম খানের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করার হুমকি দিয়েছেন ইমরান খানের প্রথম স্ত্রী জেমাইমা গোল্ডস্মিথ। -সংবাদ প্রতিদিন

 


০৭ জুন, ২০১৮ ১৮:২৬:১৯