মশা নাকি সকলকে কামড়ায় না!
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
চারদিকে আতঙ্ক...এই বুঝি কামড় বসাল ডেঙ্গির মশা। কিন্তু মশা কি সকলকে কামড়ায়? এমন প্রশ্নে অবাক হচ্ছেন? আপ রুচি খানা। সেই রুল মেনেই আমাদের কারওর পছন্দ মাছ ভাত তো কারোর বিরিয়ানি-কাবাব। মশাও কিন্তু দেখে শুনে বাছাই করে নিজের খাবার। অবাক হচ্ছেন? এমনটাই দাবি লন্ডনের স্কুল অফ ট্রপিকাল মেডিসিনের গবেষকদের। নিজের খাবার পছন্দ করার বিষয়ে মশার কিন্তু দারুণ বাছবিচার। পরিসংখ্যান বলছে কমপক্ষে ২০ শতাংশ মানুষের রক্ত মশাদের জন্য ডিলিশিয়াস! বাকিদের রক্তও মশা খাবে না এমনটা নয়। গবেষকরা বলছেন, লম্বা, বেঁটে না মোটা তার থেকেও মশা বেশি নজর দেয় গন্ধে!

মশার গন্ধ বিচার!

যাদের শরীরে কায়রামোনস রাসায়নিক বেশি থাকে তারা মশার বেশি পছন্দ। উল্টোদিকে অ্যালামোনস রাসায়নিক শরীরে বেশি থাকলে মশা ফিরেও তাকায় না। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, ঘামের সঙ্গে শরীরে ব্যাকটিরিয়া বাসা বাঁধলে, সে গন্ধও পছন্দ মশাদের। দেহে কার্বন ডাই অক্সাইড নিঃসরণ বেশি হলেও মশার কাছে তা ডিলিশিয়াস। সেই কারণেই বড় চেহারার মানুষদের বেশি মশা কামড়ায়। গর্ভবতী মহিলাদের শরীর থেকে বেশি কার্বন ডাই অক্সাইড নিঃসরণ হয় বলে মশারা তাদের বেশি পছন্দ করে। ঘামে ল্যাকটিক অ্যাসিড, অ্যামোনিয়া, ইউরিক অ্যাসিডের পরিমাণ বেশি থাকলেও মশারা আকর্ষিত হয়।

গরম শরীরে বেশি হুল!

যাদের শরীরের তাপমাত্রা বেশি, তাদের মশা বেশি পছন্দ করে। এই কারণেই  মশা সব সময় পছন্দ করে গর্ভবতী মহিলাদের।

 

০১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:৪০:৪৮