দাঁতের আরেক বড় শত্রু!
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
দাঁতের আরেক বড় শত্রু! আগে শোনা যেত চিনি বা মিষ্টিই হচ্ছে দাঁতের স্বাস্থ্যের পক্ষে প্রধান শত্রু৷ কিন্তু বর্তমান এক সমীক্ষা বলছে, চিনি ছাড়া পানীয়কেও নাকি দাঁতের বন্ধু ভাবা ঠিক নয়৷ আর সেকথাই জানালেন বিশেষজ্ঞরা৷

শুধু চিনি নয় কিন্তু!

চিনি বা মিষ্টিজাতীয় পানীয় দাঁতের স্বাস্থ্যের ক্ষতিকর – এ কথা জানার পর অনেকেই নিশ্চিন্ত মনে মিষ্টি ছাড়া পানীয় পান করেন৷ আসলে অম্লজাতীয় উপাদন মিশ্রিত পানির পিএইচ লেভেলের মান থেকে জানা গেছে যে, এই পানীয়ও দাঁতের জন্য চিনিমিশ্রিত পানীয়র মতোই খারাপ বা ক্ষতিকর৷ এই তথ্যটি জানা গেছে অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের করা এক গবেষণার ফলাফল থেকে৷

দাঁতের মিনারেলকে নষ্ট করে

খাবার বা পানীয়তে থাকা টক বা অম্ল উপাদান দাঁতের ওপরের মিনারেলকে নষ্ট করে দিয়ে আস্তে আস্তে দাঁতের ক্ষয় করে৷ এর ফলে দাঁত পাতলা হয়ে ভাঙতে শুরু করে এবং শেষে দাঁত পড়ে যায়৷ এ কথা জানান জার্মানির দন্ত বিশেষজ্ঞ এরিক রেনল্ডস৷

গবেষকদের বিশেষ পরামর্শ

গবেষকরা বলছেন, সুগার-ফ্রি সফটড্রিকস-এ অম্লজাতীয় উপাদান রয়েছে কিনা, তা কেনার সময় বিশেষভাবে লক্ষ্য রাখা প্রয়োজন৷ এখানে প্রধানত লেবুর অম্লের কথাই বলা হচ্ছে৷ তাই ড্রিকস-এ এই অম্ল দেয়া থাকলে, তা না কেনাই শ্রেয়৷ বলা বাহুল্য আইস-টি, কোকাকোলা, ফান্টা বা এনার্জি ড্রিকস-এ সাধারণত এ সব দেয়া থাকে৷

দাঁতের যত্নে যেসব দিকে লক্ষ্য রাখবেন

বেশি করে পানি পান করবেন, বিশেষ করে প্রধান খাবারগুলোর মাঝে৷ অর্থাৎ সকাল, দুপুর ও রাতের খাবারের মাঝের সময়ে৷ এছাড়াও অম্লজাতীয় উপাদান মিশ্রিত পানীয় বা ড্রিকস পান করা বা টক জাতীয় ফল বা খাবার খাওয়ার কমপক্ষে এক ঘণ্টা পর দাঁত ব্রাশ করবেন, খুব ভালোভাবে৷

বিকল্প ব্যবস্থা

খাবার পর পানি দিয়ে কুলকুচি করবেন অথবা সুগার-ফ্রি চুইংগাম চিবোবেন৷ এমনটা করলে মুখে লালা জমতে সাহায্য করে এবং অম্ল নিষ্ক্রিয় করে৷ তবে সম্ভব হলে কোকাকোলা, ফান্টা বা এনার্জি ড্রিকস থেকে দূরে থাকুন৷

নিয়মিত চেকআপ

যারা কোনোভাবেই অম্লমিশ্রিত সফটড্রিকস পান না করে থাকতে পারেন না, তারা এ সব পানীয় শুধু শুধু পান না করে প্রধান খাবারগুলোর সাথে পান করবেন৷ তারপরও অবশ্য নিয়মিত দাঁতের ডাক্তারের কাছে চেকআপ করাতে হবে তাদের৷

১৬ এপ্রিল, ২০১৬ ২২:২৬:৩১