নখ কাটতে হবে নিয়মিত
ডাঃ ফারহানা মোবিন
অ+ অ-প্রিন্ট
সাফল্যের জন্য চাই সুস্থ্য দেহ। আর সুস্থ্য দেহের জন্য পরিস্কার পরিচ্ছন্ন থাকাটা ভীষণ জরুরী। পরিষ্কার থাকার উপায় রয়েছে নানাবিধ। তার মধ্যে নখ কাটা হলো অন্যতম। আমরা দুই হাত দিয়ে নানান কিছু স্পর্শ করি। নিজের অজানেন্তই দুই হাতে ও নখে লেগে যায় বিভিন্ন রকমের ক্ষতিকর অনুজীব। অনুজীব হলো খুব ক্ষুদ্র ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া, ছত্রাক বা ক্ষতিকর পরজীবী যা দেহের জন্য ভীষণ ক্ষতিকর। এর পরজীবী গুলো নখের ময়লাতে বাসা বাধে, ডিম পাড়ে ও বাচ্চা জন্ম দেয়।

নখ নিয়মিয় না কাটলে এই বাচ্চাগুলো (অনুজীবের) বড় হয়ে যায়। তারা বিভিন্ন রকম রোগ তৈরী করে। এবং তারা আবার বাচ্চা দেয়। সেই বাচ্চাগুলো আবার বড় হয়। তৈরী করে বিভিন্ন অসুখ। যেমনÑ ডায়রিয়া, পেটে ব্যথা, বমি বমি ভাব, জ্বর জ্বর লাগা। নখ না কেটে পরিস্কার থাকলেও তাতে রোগজীবাণু জমতে পারে। তাই নখ কেটে ফেলাই ভালো। আর ছোটদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা থাকে খুবই কম। তাই তাদেরকে থাকতে হবে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন। হাতের নখ সব সময় কেটে ফেলতে হবে। নখ দাঁত দিয়ে কাটা যাবে না। এতে রোগজীবানু পেটের মধ্যে যাবে।

 

ডাঃ ফারহানা মোবিন

এমবিবিএস (ডি.ইউ), এমপিএইচ (ইপিডেমিওলজি-থিসিস পার্ট),

পোস্ট গ্র্যাজুয়েশন ট্রেনিং ইন গাইনী এন্ড অবস্ (স্কয়ার হাসপাতাল),

রেসিডেন্ট মেডিকেল অফিসার (গাইনী এন্ড অবস্),

স্কয়ার হাসপাতাল, ঢাকা, বাংলাদেশ।


২০ ডিসেম্বর, ২০১৫ ০৯:৩৯:২২