‘আলো-ছায়া’ ঘিরে পঞ্চকন্যার জীবন
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
পঞ্চকন্যার ‘দুনিয়া’এ মিশে থাকা নানা রঙে মিশে গিয়েছিল আমার আপনার মতো হাজারও মেয়েদের মন৷ তাদের সঙ্গে বাকিরাও ভুলতে শুরু করেছিল দুঃখ, কষ্ট৷ সেই খুশির আমেজে ভেসে যাওয়ার আগেই মোমের মতো গলতে শুরু করেছে ওদের ‘মোমের শহর’৷ ভেঙে গুড়িয়ে যাচ্ছে পাঁচ পাঁচটা জীবন৷ ভাঙতে শুরু করল ওদের আত্মবিশ্বাস৷ যা যা খুঁজে পেয়েছিল, যেটুকু সম্বল ছিল সবই ধীরে ধীরে হারাতে শুরু করেছে৷ কীভাবে ফাটল ধরছে কতগুলো সম্পর্কে, সেটাই ফুটে উঠেছে ‘ক্রিসক্রস’র নতুন গান ‘আলো ছায়া’এ৷

‘আলো ছায়া’ গানটি গেয়েছেন আরমান মালিক এবং শিবম শিরুলে৷ সঙ্গীত পরিচালনায় ‘কীরন ফর জ্যাম এইট’৷ প্রিতম চক্রবর্তীরই তৈরি এই প্ল্যাটফর্ম টলিউডে ‘ক্রিসক্রস’ ছবির মাধ্যমে ডেবিউ করছেন৷ শ্রোতাদের ইতিমধ্যেই ছবির টিজারের ব্যাকগ্রাউন্ড স্কোর থেকে দুটি গান বেশ পছন্দ হয়েছে৷

ছবির পোস্টার, টিজার, গান সবেতেই মু্গ্ধ হয়েছে টলিপাড়া৷ দর্শক অনেকদিন ধরেই এ ধরণের ছবির অপেক্ষায় ছিল৷ টিজারেই বাজিমাত ছবির৷ ট্রেলার মুক্তি পাওয়ার আগেই সোশ্যাল মিডিয়ায় টপ ট্রেন্ডিংয়ের তালিকায় উঠে এসেছে ‘ক্রিসক্রস’ ছবির নাম৷

ছবির চিত্রনাট্য অনুযায়ী, কয়েকটি মেয়ের জীবনের গল্প৷ পাঁচটি মেয়ে৷ পাঁচটি জীবন৷ কিন্তু বাঁধা এক সুতোর টানে৷ প্রত্যেকে আটকে একটা জায়গায়৷ লড়াই করে সমাজে নিজের জায়গা অর্জন করে নেওয়ার জেদে আটকে তারা৷

যেখানে অসংখ্য বাঁধা পেরিয়ে পৌঁছতে হবে এক নতুন দেশে৷ স্বাধীনতার দেশে৷ যেখানে গতানুগতিক মহিলার জীবন থেকে মুক্তি পাওয়ার আশা রয়েছে৷ ইরা, সুজি, মিস সেন, রূপা, মেহের৷ পাঁচটি মেয়ের গল্প নিয়ে মুক্তি পেয়েছিল ‘ক্রিসক্রস’র টিজার৷ আর সেই টিজারে দর্শক পেয়েছে মেয়েদের এক অভিনব কাহিনি৷ পরিচালক বিরসা দাসগুপ্তের হাত ধরে টলিউডে পাড়ি দিল ওম্যানহুড৷

প্রিয়াঙ্কা সরকার রয়েছেন একজন সিঙ্গল মাদারের চরিত্রে৷ নাম সুজি৷ ছেলেকে নিয়ে কমবয়সী মেয়ে বিভিন্ন কারণে বিপদে পড়তে থাকে তাকে৷ টিজারে এক মদ্যপ ব্যক্তির অত্যাচারও সহ্য করতে হয় সুজিকে৷ এসমস্ত ঝামেলার মধ্যে নষ্ট হচ্ছে তাঁর ছেলের ভবিষ্যৎ৷

সুজিকে সেই তিন্তায় কুঁড়ে কুঁড়ে খাচ্ছে প্রতিনিয়ত৷ ঘরোয়া মেয়ে রূপা৷ নিজের সবটা দিয়ে শশুড়বাড়ির যোগ্য বউমা হওয়ার চেষ্টায় পড়ে থাকে সারাদিন৷ কিন্তু স্বামীর অত্যাচার, শাশুড়ির কটূক্তি শুনে যেতে হয় তাঁকে৷ অন্যদিকে দেওরের কুনজর এড়াতেও কম ঝক্কি পোয়াতে হয়না তাকে৷ রূপার ভূমিকায় সোহিনি সরকার৷

সমাজের ঝকঝকে উঁচু স্তরের মানুষদের মধ্যে মিস সেন একজন৷ সাফল্য তার পিছু পিছু যায়৷ তবে এই দামী বাড়ি গাড়ির মধ্যেও রয়েছে বিষাদ৷ সফিস্টিকেটেড মুখোশের আড়ালে একাকী মিস সেন৷ এই চরিত্রে রয়েছেন জহা এহসান৷ অবশেষে আসা যাক মেহেরের কথায়৷ যার দুই চোখে একটাই স্বপ্ন৷ অভিনেত্রী হওয়ার আকাঙ্খা নিয়ে এগিয়ে চলেছে মেহের৷ কিন্তু সমাজের তুচ্ছ তাচ্ছিল থেকে মেহেরেরও নিস্তার নেই৷ অভিনয় নুসরত জাহান৷

ইরার চরিত্রে মিমি চক্রবর্তী৷ পেশায় একজন ফোটোগ্রাফার৷ ফোটোগ্রাফিই তার প্যাশন৷ কিন্তু সমস্যা ইরার বয়ফ্রেন্ডকে নিয়ে৷ বয়ফ্রেন্ডের চরিত্রে রয়এছেন অর্জুন চক্রবর্তী৷ যে একেবারেই ইরার পেশাগত জগৎটাকে বুঝতে চায় না৷ এমনকি আল্টিমেটামও দেয় ইরাকে সে, “হয় অফিস নয় আমি”৷ তবে এসব হুমকি দমে যাওয়ার মেয়ে ইরা নয়৷ বিয়ের পর কাজ ছেড়ে সারাটা জীবন নষ্ট করতে চায় না সে৷ এবছর আগামী ১০ অগাস্ট মুক্তি পাবে ছবিটি৷ অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন, ঋদ্ধিমা ঘোষ চক্রবর্তী, গৌরব চক্রবর্তী সহ অনেকে৷

 

৩০ জুলাই, ২০১৮ ১১:১০:৪২