বেড়েছে সয়াবিন তেলের দাম
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
রাজধানীর বাজারে হঠাৎ করেই বেড়েছে সয়াবিন তেলের দাম। শনিবার থেকে আমদানি নির্ভর এই ভোজ্য তেলের দাম প্রতি লিটারে ২ টাকা থেকে ৫ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে। গতকাল শনিবার ও আজ রোববার রাজধানীর কয়েকটি বাজারে দেখা গেছে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম লিটারে ২ টাকা বেড়েছে। আর খোলা তেলের দাম বেড়েছে ৪ টাকা থেকে ৫ টাকা।soyabean oil

সম্প্রতি মিল মালিক ও তেল ব্যবসায়ীরা ভোজ্য তেলের দাম বাড়ানোর অনুমতি চেয়ে বাণিজ্যমন্ত্রণালয়ে আবেদন করেন। তবে সরকারের তরফ থেকে এখনও দাম বৃদ্ধির বিষয়ে কিছু বলা না হলেও শনিবার থেকে সয়ারিনের দাম বাড়িয়ে দিয়েছেন তারা।

শনিবার কারওয়ান বাজারে দেখা গেছে প্রতি এক লিটারের সয়াবিন তেলের বোতল ব্র্যান্ড ভেদে ১০০ থেকে ১০৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আর ৫ লিটারের বোতল ব্র্যান্ড ভেদে বিক্রি হচ্ছে ৫০০ থেকে ৫১০ টাকায়।

অথচ গত শুক্রবার এই পণ্যটি ১ লিটারের বোতল বিক্রি হয় ৯৮ থেকে ১০২ টাকায় আর ৫ লিটারের বোতল বিক্রি হয় ৪৯০ থেকে ৫০৫ টাকায়।

খুচরা বিক্রেতারা বলছেন, আমদানি করা ভোজ্য তেলের দাম বৃদ্ধির বিষয়ে কয়েকদিন আগেই পরিশোধনকারী কোম্পানিগুলো তাদের জানিয়েছে। তার ধারাবাহিকতায় গত কয়েকদিন ধরে পাইকাররা বাজারে তেলের সরবরাহ কমিয়ে দিয়েছে।

তারা মনে করছেন, রিফাইনারি প্রতিষ্ঠানগুলো দাম বাড়াতে পারে এমন ধারনা থেকেই পাইকাররা সকল খোলা ও বোতলজাত উভয় ধরনের তেলের দাম বাড়িয়েছে।

এদিকে বাণিজ্যমন্ত্রণালয় সূত্র জানিয়েছে, রিফাইনারি প্রতিষ্ঠানগুলো সম্প্রতি ভোজ্য তেল সয়াবিনের দাম প্রতি লিটারে ৫ টাকা বাড়ানোর একটি প্রস্তাব মন্ত্রণালয়ে জমা দিয়েছে। তবে প্রতি লিটারে ৫ টাকা বাড়ানোর কোনো অনুমতি মন্ত্রণালয় তাদের দেয়নি।

তেলের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব মন্ত্রণালয়ে পাঠানো সম্পর্কে তেল পরিশোধনের প্রতিষ্ঠান সিটি গ্রুপের মহাব্যবস্থাপক বিশ্বজিৎ সাহা একটি ইংরেজি দৈনিককে বলেন, আমাদের তরফ থেকে একটি প্রস্তাবনা আমরা মন্ত্রণালয়ে দিয়েছি। মন্ত্রণালয় এখনও আমাদের প্রস্তাবে কোনো সাড়া দেয়নি। তবে আশা করি খুব শিগগরিই এই সম্পর্কে ইতিবাচক সিদ্ধান্ত দেবে।

তিনি আশা প্রকাশ করেন, আন্তর্জাতিক বাজারে যেহতেু পণ্যটির দাম বেড়েছে তাই আমাদের এখানেও দাম বাড়ানোর বিষয়টি বিবেচনা করবে মন্ত্রণালয়।

বিশ্বজিৎ সাহা বলেন, দাম বাড়ানোর বিষয়ে সরকারের অনুমোদন না পেলে আমরা দাম বাড়াবো না। তবে ইতোমধ্যে খুচরা বা পাইকারিতে কোনো বিক্রেতা বেশি দাম রাখলে সে দায় আমাদের নয়।

২২ জানুয়ারি, ২০১৭ ২১:৪৬:২৫