বড় অংশ এককভাবে ফেরত দিতে চায় আরসিবিসি
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
ফিলিপাইনের তৃতীয় বৃহত্তম বহুজাতিক ব্যাংক রিজাল কর্মাশিয়াল ব্যাংকিং করপোরেশন আরসিবিসির খারাপ সময় যাচ্ছে এখন। এই ব্যাংকের হিসাব থেকে বাংলাদেশের রিজার্ভের ৮৮ মিলিয়ন ডলার চুরির বিষয়টি প্রকাশের পর ইমেজ সংকটে পড়ে ব্যাংকটি।

এ কারণে বাংলাদেশ ব্যাংকের চুরি যাওয়া অর্থের প্রায় অর্ধেক এককভাবে ফেরত দেওয়ার চিন্তা-ভাবনা করছে আরসিবিসি। ম্যানিলা থেকে বিস্তারিত আমাদের বার্তা প্রধান মামুন আবদুল্লাহর প্রতিবেদনে।

ম্যানিলার মাকাতি এলাকার জুপিটার স্ট্রিট্রে আরসিবিসির ছোট্ট এই শাখাটি দেখলে বোঝার উপায় নেই কত বড় অঘটন ঘটে গেছে এখানে।

ব্যাংকিং খাতে সারা বিশ্বে তোলপাড় করা বড় হ্যাকিং ঘটনায় কালো ছাড়া পড়েছে ব্যাংকটির ছোটবড় সব শাখায়।গত মঙ্গলবার সিনেটের পঞ্চম শুনানিতে এসে এমন উদ্বেগের কথা স্বীকারও করেন আরসিবি’র প্রধান নির্বাহীর আইনজীবি।

আরসিবিসি’র আইন উপদেষ্টার বক্তব্যের আপস চালানো যায়, যাতে তিনি ব্যবসা কমার কথা স্বীকার করে বাংলাদেশ ব্যাংকের টাকা ফিরত দিতে ব্যাংকের পরিচালনা পরিষদে প্রস্তাব পাঠানোর কথা বলেছেন।

এই অবস্থায় অন্যদের কাছ থেকে উদ্ধার করা টাকার বাইরে যা থাকবে তার পুরোটাই বাংলাদেশকে দিতে ব্যাংকের বোর্ডসভায় প্রস্তাব পাঠানোর কথা জানিয়েছে আরসিবিসি প্রতিনিধি।

টাকা যেহেতু আরসিবিসির হিসাব থেকে গেছে সেহেতু সব দায় নিতে হবে আরসিবিসিকে এমন কথা্‌ও বলছেন অনেকে

আরসিবিসি থেকে টাকা চুরির ঘটনা দুই পরও আলোচিত হচ্ছে ফিলিফিনের অনেক জায়গায়।

 

১৭ এপ্রিল, ২০১৬ ০০:০৪:১৪