সেচ মিটারে অতিরিক্ত বিল নেওয়ার প্রতিবাদে সেনবাগে কৃষকদের মানববন্ধন
মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, নোয়াখালী
অ+ অ-প্রিন্ট
নোয়াখালীর সেনবাগ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি কৃষকদের নিকট থেকে সেচ মিটার অতিরিক্ত ১৫শ টাকা করে আদায়ের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে সেনবাগের কয়েকশ কৃষক। সোমবার সেনবাগ পৌর শহরের থানা মোড়ে বেলা ১১ টার-থেকে ১২টা পর্যন্ত ঘন্টাব্যাপী ওই মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়। এসময় কৃষকদের সঙ্গে একাত্বতা প্রকাশ করে মানববন্ধনে অংশ গ্রহন করেন সেনবাগ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ও সেনবাগ পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি নুরজ্জামান চৌধুরী, স্থানীয় এমপির প্রতিনিধি আবু নাছের ভিপি দুলাল, সেনবাগ প্রেস ক্লাবের সভাপতি ও পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর খোরশেদ আলমসহ বিভিন্ন শ্রেনী ও পেশার লোকজন।

আন্দোলকারী কৃষক মোঃ সাহাব উল্লাহ জানান, তিনি ইরি-বোরো ধান ও রবি শষ্য উৎপাদনের জন্য ১৯/১০/২০১৪ সালে সেচ মিটারের জন্য আবেদন করেন। কিন্তু সেনবাগ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি তাকে সেচ মিটার দেন নাই। তাই নিরুপায় হয়ে ফসল উদপাদের জন্য তিনি সহ অন্যান্য কৃষকরা আবাসিক মিটার থেকে সেচ কার্য পরিচালনা করে আসছেন। এতে করে পল্লী বিদ্যুৎ কতৃপক্ষ সেনবাগ উপজেলার প্রায় ৬শত কৃষকের ব্যবহৃত মিটারের রিডিংয়ের বিলের সঙ্গে মাসিক বিলের সঙ্গে অতিরিক্ত আরো ১৫শ টাকা করে জরিমানা দিতে বাধ্য করছে যা অন্যায়।

এব্যাপারে সেনবাগ উপজেলা পল্লী বিদ্যুতের ডেপুটি জেনারেল ম্যানাজার(ডিজিএম) বিজয় কৃঞ্চ সাহা জানায়,সরকারের নীতিমালার আলোকে ওই জরিমানা আদায় করা হচ্ছে। তিনি আরো জানান, সেচ অনুমোদিত সংযোগ গ্রহন কারী গ্রহকদের এলাকায় যদি কোন ট্রেন্সাসফরমার পুড়ে যায় বা নষ্ট হয়ে যায় সে ক্ষেত্রে তারা ক্ষতিপূরণ দিয়ে হয়। অপদিকে আবাসিক গ্রহকরা তাদের মিটার থেকে সেচ মোটর চালালে ট্রান্সাসফরমারের ক্ষতি হলে ক্ষতি পূরণ দিতে হয়না। এই কারণে ওই জরিমানা আদায় করে গ্রহকদের নিরুউসহিত করা হচ্ছে।  

১৯ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০:০০