কেশবপুরে পানের বরজে আগুন ॥ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি
জাহিদ আবেদীন বাবু, কেশবপুর (যশোর)
অ+ অ-প্রিন্ট
যশোরের কেশবপুর উপজেলা পল্লীতে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এক আওয়ামীলীগ নেতার পানের বরজে আগুন দিয়েছে স্থানীয় কতিপয় দূর্বৃত্তরা। এতে ঐ বরজের প্রায় লক্ষাধিক টাকার পানের ক্ষতি হয়েছে। এসময় আগুল নিয়ন্ত্রন করতে বরজ মালিক মিজানুর রহমান গুরুতর আহত হয়।

শনিবার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার পাচারই গ্রামের দক্ষীন পাড়ার বজলু দফাদারের ছেলে ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মিজানুর রহমানের ৩৩ শতকের একটি পানের বরজের আংশিক আগুনে পুড়ে ভুষ্মিভুত হয়ে গেছে। ক্ষতিগ্রস্থ পানের বরজের মালিক মিজানুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, শুক্রবার রাত অনুমান সাড়ে ১১ টার দিকে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এলাকার একটি সংঘবদ্ধ চক্র আর্থিকভাবে দুর্বল করতে তার পানের বরজে আগুন ধরিয়ে দেয়। পাশ্ববর্তি আলি হাসান  নামে এক ব্যক্তি ঐ রাতে প্রথম বরজে আগুন দেখতে পেয়ে ডাকচিৎকার দিলে এলাকাবাসির সার্বিক সহযোগীতায় মিজানুর রহমান বরজের আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। এতক্ষনে ঐ বরজের প্রায় লক্ষাধিক টাকার পানের ক্ষতি হয়ে যায়। মিজানুর রহমান আরো জানান, ইতোপূর্বে একই সিন্ডিকেট তার পানের বরজ কেটে ব্যাপক ক্ষতি, এমনকি তার গৃহ পালিত গরুকে বিষ খাইয়ে হত্যা করেছিলো। সরাসরি দুর্বৃত্তদের নাম প্রকাশ না করলেও রাজনৈতিক শত্রুতার জের ধরে তার প্রতিপক্ষরা এই কাজ করেছে বলে তিনি সন্দেহ প্রকাশ করে। 

পানের বরজে আগুন দেওয়ার ব্যাপারে জানতে চাইলে পাচারই গ্রামের সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা মসলেম উদ্দীন, গোপাল চন্দ্র, রফিকুল ইসলাম, পাশের বরজের মালিক আবু বকর বলেন, রাজনৈতি প্রতিসিংকার বসবতি হয়ে তার প্রতিপক্ষ একটি সংঘবদ্ধ চক্র তাকে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ করতে একের পর এক ঘটনা ঘটিয়ে যাচ্ছে, আমরা জড়িতদের খঁজে বের করে তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি। এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হবে বলে মিজানুর রহমান সাংবাদিকদের জানান।

 

১৭ মার্চ, ২০১৯ ২২:৫৫:২৯