সাতক্ষীরায় গৃহবধূর লাঠির আঘাতে ভাসুরের মৃত্যু
আক্তারুজ্জামান বাচ্চু, সাতক্ষীরা
অ+ অ-প্রিন্ট
সাতক্ষীরায় গৃহবধূর লাঠির আঘাতে আহত ভাসুরের মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোরে ঢাকার একটি বে-সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত ভাসুর শহিদুল ইসলাম সাতক্ষীরার তালা উপজেলার পাটকেলঘাটা থানার নগরঘাটা গ্রামের আব্দুল সরদারের ছেলে।

নিহতের ছোট ভাই রাশিদুল ইসলাম জানান, গত ৯ সেপ্টেম্বর সকালে স্ত্রী মনোয়ারা খাতুনের সাথে তার ঝগড়া চলছিলো। ঝগড়ার এক পর্যায়ে স্ত্রী মনোয়ারা লাঠি নিয়ে তাকে মারতে উদ্যত হয়। এসময়  বড় ভাই শহিদুল ইসলাম ঠেকাতে আসলে স্ত্রী মনোয়ারা তার ভাসুর  বড় ভাই শহিদুলের মাথায় লাঠি দিয়ে আঘাত করে। গুরুতর আহত অবস্থায় বড় ভাইকে  প্রথমে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। অবস্থার অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরবর্তীতে সেখান থেকে তাকে ঢাকায় একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার ভোরে তিনি মারা যান।

পাটকেলঘাটনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোল্লা জাকির হোসেন জানান, এ ঘটনায় থানায় এখনো কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

১২ অক্টোবর, ২০১৭ ১৩:৪৩:২৯