কানাডা পিডিআই-এর মুক্ত আলোচনা
রাজনৈতিক ধ্বস ঠেকাতে দেশে বাম গণতান্ত্রিক প্রগতিশীল শক্তির ঐক্য আহ্বান
অখিল সাহা
অ+ অ-প্রিন্ট
প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক উদ্যোগ (পিডিআই)-কানাডা আয়োজিত সমকালীন বাংলাদেশঃ রাজনৈতিক মুক্ত আলোচনায় অংশগ্রহনকারী প্রবাসী নাগরিকবৃন্দ আহ্বান জানান। মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের সচেতন অসংখ্য প্রবাসী মানুষ, বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান, মিডিয়া কর্মী ও তরুণ প্রজন্মের উপস্থিতিতে সমৃদ্ধ ছিল আলোচনাপর্ব। অধিকাংশ প্রবাসী ব্যক্তিত্ত্ব দেশের রাজনীতি, শিক্ষাব্যবস্থা, ব্যাংকিং খাত, উন্নয়ন ও পরিবেশসহ সকল জাতীয় বিষয়ে মতামত, উদ্বেগ এবং আশাবাদ তুলে ধরেন। 

আলোচনার সুচনা করেন পিডিআই যুগ্ম আহ্বায়ক বিদ্যুৎ রঞ্জন দে। তিনি বলেন, দেশের স্বাধীনতার উদ্দেশ্য ব্যর্থতায় পর্যবসিত হচ্ছে। প্রাক্তন ডাকসু এজিএস নাসির উদ দুজা তাঁর বক্তব্যে বলেন, দেশে বিরাজমান গণতান্ত্রিকতার আড়ালে দুর্বৃত্তায়িত রাজনীতি, বিরাজনীতিকরন সংকট, জাতীয় আর্থিক সমৃদ্ধির নীচে টেকসই উন্নয়ন পরিকল্পনার অনুপস্থিতি, দ্রুতগতিতে ধনী-দরিদ্রের ব্যবধান বৃদ্ধি, দেশে ৫ শতাংশ মানুষের হাতে সমস্ত সম্পদ কেন্দ্রীভুত হওয়া, ইত্যাদি কারণে দেশে ভূমিধ্বসের মত রাজনৈতিক ও সামাজিক ধ্বস নেমে আসতে পারে। বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা মোঃ ইলিয়াস মিয়া মনে করেন, দেশে মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা বিরোধী শক্তির রাজনীতি করার অধিকার থাকা উচিৎ নয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ফারহানা আজিম শিউলি শিক্ষা ব্যবস্থা প্রসঙ্গে বলেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও অসাম্প্রদায়িক দেশ গড়তে সর্বাগ্রে একটি গণমুখী সামগ্রিক শিক্ষাব্যবস্থা প্রয়োজন।  কানাডা উদীচী সভাপতি সৈয়দ আজফার ফেরদৌস বলেন, সাম্প্রদায়িক শক্তির সাথে সরকারের আপোষকামী মনোভাব জাতীয় জীবনে দীর্ঘমেয়াদী সামাজিক ক্ষতি বয়ে আনবে এবং এ বিষয়ে সরকারের সর্বোচ্চ মহলের হস্তক্ষেপ আশা করেন। ব্যাংকার নিরঞ্জন রায় বিশ্লেষন করে বলেন, ব্যাংকিং খাতের লুটপাট অদুর ভবিষ্যতে এই খাত দুর্বল করে তুলবে। রাজনৈতিক ধ্বস ঠেকাতে দেশে বাম গণতান্ত্রিক প্রগতিশীল শক্তির ঐক্য আহ্বান

এছাড়াও বক্তব্য রাখেন সর্বজনাব কাজী জহির উদ্দিন, কানাডা উদীচী সভাপতি সৈয়দ আজফার ফেরদৌস ও সাধারণ সম্পাদক সৌমেন সাহা, কৃষিবিদ ডঃ অরুনেন্দু ভৌমিক, প্রাক্তন রাজশাহী বিশ্বদ্যিালয় শিক্ষক ডঃ এস কে আহমেদ কামাল, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলামনাই সাধারন সম্পাদক ফকরুল ইসলাম চৌধুরী মিলন, কৃষিবিদ প্রাক্তন রাকসু ভিপি ফায়েজুল করিম, কবি ও লেখক তুষার গায়েন, ব্যবসায়ী শংকর দে, চট্টগ্রাম সমিতির সাধারণ সম্পাদক শিবু চৌধুরী, পরিবেশবিদ প্রকৌশলী ননীগোপাল দেবনাথ, এবং সাংস্কৃতিক কর্মী সোলায়মান তালুত, রেজা অনিরুদ্ধ ও ওমর হায়াৎ।  

সকলের সম্মিলিত আহ্বান, জাতীয় স্বার্থে এখনি দেশে বৃহত্তর বাম গণতান্ত্রিক প্রগতিশীল শক্তির ঐক্য গঠন প্রয়োজন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিতদের মধ্যে সর্বজনাব মোঃ আসিউজ্জামান (বিডিনিউজ২৪), সাজ্জাদ হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা গৌরাঙ্গ দেব, ডঃ আজিজুল হক, ডঃ সুজিৎ দত্ত, খন্দকার টিটো, চিত্ত ভৌমিক, মিনারা বেগম, মনোরঞ্জন তালুকদার, স্বপন বিশ্বাস, অমর চৌধুরী, রানা দেব রায়, মুস্তাফা মাহমুদ, রোমান চৌধুরী, দুলাল পাল, হাবীবুর রহমান, আশরাফুল হাসান, সুনীতি সরদার, ছাড়াও আরো অনেকে।  

টরন্টো বাঙালীপাড়ার কেন্দ্রস্থলে হোপ ইউনাইটেড চার্চে ১৬ই জুলাই, রবিবার, সন্ধ্যা ৬.০০টায় শুরু হয়ে ৯.৩০টা পর্যন্ত এই উন্মুক্ত আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। রবিবারের সন্ধ্যার এই আলোচনায় টরন্টো ছাড়াও নিকটবর্তী শহর যেমন স্কারবরো, ব্রাম্পটন, মিসিসাগা, গুয়েল্ফ, মিল্টন ও হ্যামিল্টন থেকে অনেকে যোগদান করেন। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনায় ছিলেন পিডিআইয়ের সমন্বয়ক মাহবুব আলম। অনুষ্ঠান শেষে সভার সভাপতি পিডিআই-এর যুগ্ম আহ্বায়ক আজিজুল মালিক সবাইকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং ভবিষ্যতে এ জাতীয় আরো আলোচনার আয়োজন হবে বলে আশাপ্রকাশ করেন।

 

১৮ জুলাই, ২০১৭ ২২:৫৪:৩৭