কানাডায় বাঙালী তরুণরা কেন আত্মহত্যা করছে?
অ+ অ-প্রিন্ট
মানসিক অসুস্থতা কিংবা হতাশায় সম্প্রতি কানাডায় আত্মহত্যা  করেছে কয়েকজন বাঙালী তরুণ । ঘটনাটি প্রচণ্ডভাবে কমিউনিটির বাঙালী সদস্যদের চিন্তিত করে তুলে। বিষয়টির গুরুত্ব বিবেচনায় এক মুক্ত আলোচনার আয়োজন করে বেঙ্গলি ইনফরমেশন এন্ড এমপ্লয়মেন্ট সার্ভিসেস (বায়েস)। মানসিক স্বাস্থ্য: সমস্যা ও প্রতিকার শীর্ষক এই আলোচনা সভাটি ২৯ এপ্রিল টরন্টোর ডেনফোর্থস্থ এক্সেসপয়েন্টে অনুষ্ঠিত হয়। কমিউনিটির বিভিন্ন শ্রেনী ও পেশার প্রতিনিধিরা এতে অংশগ্রহণ করে প্রশ্ন রাখেন, কেন বাঙালী তরুনরা এখানে আত্বহত্যা করছে তা খুঁজে বের করতে হবে।

রায়ারসন বিশ্ববিদ্যালয়ের সোশাল ওয়ার্ক গ্রাজুয়েট, নেসার আহমেদ ও নিরানা রেমোটার অনুষ্ঠানে এ বিষয়ক একটি পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপন করেন। এতে সহায়তা করেন বায়েসের কর্মী রাফিয়া রূপা। আলোচনায় অংশ নিয়ে, কানাডায় কয়েক দশক ধরে বসবাসকারী ইকরাম উল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘আজ থেকে ৩৬ বছর আগে যখন কানাডায় আসি, সাদারা আমার চামড়া দেখে কখনও কখনও গায়ে ছুঁয়ে দেখতো, এ কেমন মানুষ’ তিনি বলেন, ’কানাডিয়ান সমাজে ইন্টিগ্রেশনটা নবাগতদের জন্য খুবই গুরুত্বপুর্ণ। এটা মানতে না পারার কারনে বিভিন্ন সমস্যার সৃষ্টি হয়। আমার অতি পরিচিত কানাডায় তিনজন বাঙালী মারা গেছে আত্মহত্যা করে। অনেক আত্মহত্যা অপ্রকাশিতও থাকছে এখানে।’ তিনি প্রশ্ন রাখেন, বাঙালী তরুণরা কেন কানাডায় আত্বহত্যা করছে, সেটা আমাদের খুঁজে বের করতে হবে।’

অন্যান্য আলোচকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, সমাজ বিজ্ঞানী ড. নূর মোহাম্দ কাজী,শামসুন্নাহার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন অধ্যাপক মো. খলিলুর রহমান, সাংবাদিক মাহবুবুল হক ওসমানি, আইনজীবী ড. মাহতাব উদ্দিন,কবি, সাহিত্যিক সুহেল আহমেদ, বায়েসের সদস্য নুরুল ইসলাম, প্রজেক্ট কোঅর্ডিন্টের রেহানা আখতার, চাইল্ড এন্ড ইয়ুথ ওয়ার্কার ফাতিমা খাতুন ইথার প্রমুখ  প্রমুখ। বায়েসের আজীবন সদস্য সফিউদ্দিন আহমেদ, সৈয়দ ফখরুদ্দিন, শামীম আরাসহ বিপুল সংখ্যক কমিউনিটি প্রতিনিধি এতে উপস্থিত ছিলেন।

টরন্টোর  বাংলাদেশি কমিউনিটির ওপর ফারাহ ইসলামের পরিচালিত এক গবেষণা প্রতিবেদনের সূত্র থেকে বলা হয় কানাডায় নবাগত বাংলাদেশীদের প্রায় ৫০%  মানসিক সমস্যায় ভুগেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বায়েসের চেয়ারপারসন গোলাম মোস্তফা। আর নির্বাহী পরিচালক ইমাম উদ্দিন-এর সমাপনী বক্তব্যের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়। উল্লেখ্য সিনিয়রদের নিয়ে বায়েসেরেএকটি প্রজেক্টের আওতায় এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। প্রতিমাসে ভিন্ন ভিন্ন বিষয়ের ওপর একটি এ ধরনের আলোচনা অনুষ্ঠানের করা হবে। কানাডায় বাঙালী তরুণরা কেন আত্মহত্যা করছে?

০২ মে, ২০১৭ ২০:২৯:৩৬